বয়ঃসন্ধি কাল প্রয়োজনীয় টুলস কি কি বলা উচিত নয়

সন্তানের সামনের যে কাজ কখনো করবেন না:

ঢাকা: আপনার সন্তানই আপনার সবকিছু। আপনার জীবনের সবচাইতে গুরুত্বপূর্ণ মানুষটি হলো আপনার সন্তান। আর তাই সন্তানের সকল চাহিদা সাধ্যমত পূরণের চেষ্টা করার জন্য দিন রাত চেষ্টা করছেন আপনি। আপনার সন্তান যেন সঠিক ভাবে বেড়ে উঠতে পারে এবং একজন ভালো মানুষ হয় তার জন্য আপনার চেষ্টার অন্ত নেই। কিন্তু আপনি কি জানেন, প্রতিদিন আপনার সন্তানের সামনে কিছু ভুল কাজ করে ফেলছেন আপনি? জেনে নিন কোন কাজ গুলো সন্তানের সামনে করা উচিত না সেই ব্যাপারে।


মিথ্যা বলা


অনেক বাবা মায়েরাই সন্তানের সামনে মিথ্যা কথা বলে থাকে। সন্তানের সাথে অথবা অন্যদের সাথে মিথ্যা কথা বললে আপনার সন্তান মিথ্যা বলা শিখে ফেলবে এবং মিথ্যা বলাটাকে অন্যায় হিসেবে মানতে চাইবে না। তাই সন্তানের সামনে মিথ্যা বলা পরিহার করুন।


দাম্পত্য ঝগড়া


অনেক দম্পতিই সন্তানের সামনেই ঝগড়া করেন যা একেবারেই উচিত না। সন্তানের সামনে তার বাবা কিংবা মা ঝগড়া করলে সন্তান মানসিকভাবে ভীত হয়ে পড়ে এবং ধীরে ধীরে বাবা মায়ের সাথে দূরত্ব বেড়ে যায়। তাই চেষ্টা করুন সন্তানের সামনে আপনার সঙ্গীর সাথে কথা কাটাকাটি কিংবা ঝগড়া না করার।


চিৎকার চেঁচামেচি


সন্তানের সামনে রিকশাওয়ালা, রেস্টুরেন্টের ওয়েটার, বুয়া কিংবা পরিবারের কারো সাথে চিৎকার চেঁচামেচি করবেন না। এতে আপনার সন্তান মানুষকে সম্মান দিতে শিখবে না। ফলে বড় হতে হতে তার আচার আচরণেও এর প্রভাব পড়বে। তাই সন্তানের সামনে সবার সাথে ভালো ব্যবহার করার চেষ্টা করুন। কারো সাথে উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় করতে হলেও সন্তানের থেকে দূরে গিয়ে করুন।


কোনো আত্মীয় অথবা বন্ধুকে ব্যঙ্গ করা


অনেকেই সন্তানের সামনে বন্ধু কিংবা বিরক্তিকর কোনো আত্মীয়কে ব্যঙ্গ করে থাকে যা একেবারেই উচিত না। আপনার সাথে সেই মানুষটির সম্পর্ক বন্ধুত্ব হলেও আপনার সন্তানের চাইতে সেই ব্যক্তি বয়সে অনেক বড়। আপনি কাউকে ব্যঙ্গ কিংবা কটাক্ষ করলে আপনার সন্তানও সেটা শিখে ফেলবে এবং পরবর্তিতে মানুষকে অসম্মান করতে শিখবে।


সন্তানের শিক্ষক অথবা স্কুল নিয়ে অসম্মানজনক কথা বলা


সন্তানের সামনে সন্তানের স্কুল কিংবা শিক্ষকদের কোনো দোষ নিয়ে আলোচনা করবেন না। এতে আপনার সন্তান মনে করবে তার শিক্ষক তাকে পড়ানোর যোগ্য না। এটা ভেবে তারা পড়াশোনায় অমনোযোগী হয়ে যাবে এবং শিক্ষককে অসম্মান করবে।