আপনার সোনামনি তথ্যসমূহ বৃদ্ধি ১-৭ মাস

বৃদ্ধি ১-৭ মাস

এটি একটি গাইডলাইন মাত্র।প্রত্যেকটি শিশুই ভিন্ন এবং সে তার নিজের মত করে বেড়ে ওঠে।শুধু মাত্র বিপদচিহ্ন গুলো দেখলেই ডাক্তারের পরামর্শ নিন।


১ থেকে ৭ মাস


মাইলস্টোনঃ ১ মাস
•    এক সপ্তাহের মধ্যে মায়ের আওয়াজ, চেহারা ও স্পর্শ চিনতে শিখবে।
•    চলন্ত কিছুর দিকে তাকানো শিখবে।
•    মাথা ঘুরিয়ে শব্দের উৎসের দিকে তাকানো চেস্টা করবে।


বাবা-মা এর করণীয়:
•    শিশুর সাথে কথা বলুন, কোলে নিন।শিশুর ঘুমানোর ও ক্ষুধার লক্ষনগুলো চিনতে শিখুন।
•    বারবার খাবার খাওয়ান।
•    খেলনা দিয়ে দৃস্টি আকর্ষন করুন।


বিপদ চিহ্ন:
•    খুব আস্তে খাওয়া বা চুষতে না পারা।
•    চলন্ত কিছুর দিকে দৃস্টি না দেয়া।
•    তীব্র আলো বা শব্দে প্রতিক্রিয়া না দেখানো।


মাইলস্টোনঃ ৩ মাস
•    শিশু মুখ দিয়ে বিভিন্ন ধরনের আওয়াজ করার চেস্টা করবে।
•    মাথার ভারসাম্য বজায় রাখতে পারবে।
•    পেটের উপর শুয়ে মাথা তোলার চেস্টা করবে।
•    হাতের মুঠি খুলতে ও বন্ধ করতে পারবে।খেলনা নাড়াচাড়া করার চেস্টা করবে।
•    আকর্ষনীয় কিছু দেখলে আগ্রহী হয়ে ওঠবে।


বাবা-মা এর করণীয়:
শিশুর যেকোন কিছুতে সাড়া দিন।কথা বলুন, হাসুন,বই পড়ুন, বিভিন্ন পরিচিত জিনিসের নাম বলুন।খেলনা ধরতে সাহায্য করুন।


বিপদ চিহ্ন:
•    মাথার ভারসাম্য বজায় রাখতে না পারে।
•    কিছু ধরতে না শিখে।
•    তীব্র আলো বা শব্দে প্রতিক্রিয়া না দেখানো।


মাইলস্টোনঃ ৪-৭ মাস
•    শিশু হাসবে, কিছু বলার চেস্টা করবে।
•    গড়াগড়ি করবে।
•    সাহায্য ছাড়া বসতে শিখবে।
•    কোন কিছুতে বাধা দিলে বা ‘না’ বললে বুঝতে পারবে।
•    নিজের নাম শুনলে যে ডাকবে তার দিকে তাকাবে।
•    চারপাশের জিনিস চিনতে শিখবে।


বাবা-মা এর করণীয়:
শিশুর সাথে খেলা করুন, গোসলের সময় হাসানোর চেস্টা করুন।শিশুর কথার বিপরীতে কথা বলুন।রঙিন বই নিয়ে পড়ুন।বিভিন্ন জিনিসের নাম শিখান।শিশুকে খেলার সুযোগ দিন ও ঘর শিশুর জন্য নিরাপদ রাখুন।শিশুর খাওয়া, ঘুম ও খেলা রুটিন মত করানোর চেস্টা করুন।


বিপদ চিহ্ন:
•    জড়সড় বা নিস্তেজ থাকা।
•    মাথার ভারসাম্য বজায় রাখতে না পারে।
•    না হাসা
•    আকর্ষনীয় কিছু দেখলে আগ্রহী না হওয়া।