মা হওয়ার আগে তথ্যসমূহ গর্ভধারণের সমস্যা ও সমাধান

গর্ভধারণের সমস্যা ও সমাধান

গর্ভধারণে সমস্যা:

অনেকেই আছেন যারা অনেকদিন ধরে বাচ্চার জন্য চেষ্টা করছেন কিন্তু এখনও সাফল্য আসছে না এক দুই মাস চেষ্টার পরে অনেক দম্পতি হয়ত হতাশায় ভুগতে থাকেন। হতাশ হওয়ার বা চিন্তিত হওয়ার কিছু নেই। যেসকল দম্পতি একবছর ধরে চেষ্টা করছেন কিন্তু সাফল্য আসছে না তারা এই বিষয়ে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের কাছে যেতে পারেন।
আমাদের সমাজে এখনও বন্ধ্যাত্ব বা বাচ্চা না হওয়ার দোষ সম্পূর্ণরুপে মহিলাদের উপর দেয়া হয়।কিন্তু আসল ব্যপারটা হচ্ছে বন্ধ্যাত্ব বা বাচ্চা না হওয়ার ব্যাপারে স্বামী ও স্ত্রী দুজনেরই ভূমিকা রয়েছে।
কিছু কিছু কারণে গর্ভধারণের সমস্যা তৈরী হতে পারে
পুরুষদের ক্ষেত্রে:
স্পার্মের(শুক্রানু)সমস্যা : শুক্রানুর পরিমান কম থাকা বা অনুপস্থিত থাকা, আকৃতি ঠিক না থাকা বা চলাচল স্বাভাবিক না থাকা ।এই সমস্যাগুলো তৈরী হয় বিভিন্ন কারণে তার মধ্যে অন্যতম হল:
পুরুষের ক্ষেত্রে  কারণসমূহ :
•    শুক্রাণু কম উৎপন্ন হলে
  
•    শুক্রাণু পুরোমাত্রায় নির্দিষ্ট বেগে গতিশীল না হলে
   
•    স্পার্ম বা শুক্রাণুর আকৃতি স্বাভাবিক না হলে
   
•    যৌনবাহিত রোগের কারণে স্পার্ম বা শুক্রাণুর সংখ্যা ও গতিশীলতা কমে গেলে
   
•    বয়সজনিত কারনে শুক্রাণুর সংখ্যা কমে গেলে
   
•    কিছু বিশেষ ঔষধ সেবন এবং রাসায়নিক দ্রব্যের প্রভাবে অন্ডকোষের কর্মক্ষমতা কমে গেলে
   
•    অন্ডকোষে আঘাত লাগলে
   
•    রেডিয়েশন বা বিকিরণের জন্যেও শুক্রাণুর উৎপাদন ক্ষমতা নষ্ট হয়ে গেলে
   
•    পিটুইটারী গ্রন্থির কোন সমস্যা হলে
   
•    থাইরয়েড হরমোনের তারতম্য হলে
   
•    বহুমূত্র রোগ বা উচ্চরক্তচাপ থাকলে
   
•    অন্ডকোষের পুং হরমোন তৈরীর কোষ লেডিগ সেল এবং শুক্রাণু তৈরীর কোষ সারটোলি সেলের ত্রুটি থাকলে
   
•    কোন সংক্রমণ বা আঘাতের ফলে শুক্রাণু বের হবার পথ বন্ধ হয়ে গেলে
   
•    উশৃঙ্খল জীবনযাপন, ধূমপান, মদ্যপান করলে
   
•    পর্যাপ্ত বিশ্রামের অভাব হলে
   
•    গরমে এক নাগাড়ে কাজ করলে, টাইট আন্ডারওয়্যার পড়লে
   
•    মানসিক চাপ, দুশ্চিন্তা করলে
   
•    নিয়মিত বিষন্নতার ঔষধ সেবন করলে
   
•    অতিরিক্ত ওজন হলে
   
মহিলাদের ক্ষেত্রে:
•    ৩০ বা তার চেয়ে বেশী বয়সে গর্ভধারণে বিভিন্ন সমস্যা তেরী হয় এবং এটি অনেক সময় ঝুঁকি পূর্ণ হয়ে যায়।
•    স্ত্রী প্রজননতন্ত্রের বিভিন্ন সমস্যা যেমন: পলিসিস্টিক ওভরিয়ান সিনড্রম, ইউরেটাইন ফাইব্রয়েড, এন্ডোমেটরিওসিস ও পেলভিক ইনফ্ল্যামেটরি ডিজিজ এর কারণে গর্ভধারণে সমস্যা তেরী হতে পারে।
তাই যে সকল দম্পতি এক বছর বা তার বেশী সময় ধরে চেষ্টা করছেন কিন্তু সাফল্য আসছে না তারা দেরী না করে এই বিষয়ে বিশেষজ্ঞ ডাক্তরের পরামর্শ নিন। এছাড়াও অনেক সময় দেখা যায় কোন ধরনের শারীরিক সমস্যা না থাকার পরও অনেকে গর্ভধারণ করতে পারছেন না। এই ক্ষেত্রে আপনাকে অবশ্যই ধৈর্য ধরতে হবে এবং স্বাস্থ্যের প্রতি যত্নবান হতে হবে।